বন্ধু মানেই জীবনের আশীর্বাদ। ভালো বন্ধু থাকলে জীবনটাই যেন সহজ হয়ে যায় অনেকখানি। কিন্তু এই বন্ধুই আপনার জন্য হয়ে উঠতে পারে ক্ষতিকর। আপনার সাধের সম্পর্কটি নষ্ট হয়ে যেতে পারে শুধুমাত্র আপনার সবচাইতে কাছের বন্ধুটির কারণেই। জানতে চান কীভাবে? জেনে নিন বন্ধুরা কীভাবে আপনার সম্পর্কের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে সেই ব্যাপারে। আর লক্ষণগুলো মিলে গেলে আজ থেকেই হয়ে যান সাবধান!

সন্দেহের সৃষ্টি করানো 

 
আপনার বন্ধুরা বুনে দিতে পারে আপনার ও আপনার প্রেমিক/প্রেমিকার মাঝে সন্দেহের বীজ। আপনাকে অহেতুক সে হয়তো বলে বসবে ‘দেখ গিয়ে কোথায় কী করে বেড়াচ্ছে’, আর এই সামান্য কথাটাতেই আপনার মনে আপনার সঙ্গীর প্রতি সন্দেহ জন্মে যেতে পারে। এছাড়াও অনেক সময় বন্ধুর প্রেমিক/প্রেমিকার প্রতি ঈর্ষার বর্শবর্তী হয়ে অনেক সময় জোর করেই বন্ধুর সাথে বন্ধুর প্রেমিক/প্রেমিকার সম্পর্কের অবণতি ঘটানো ও সন্দেহ সৃষ্টির চেষ্টা করে বন্ধুরা। 

আপনার সঙ্গীর সাথে ফ্লার্ট করা 
আপনার প্রেমিক/প্রেমিকা যদি অনেক বেশি সুন্দর ও আকর্ষনীয় ব্যক্তিত্বের হয়ে থাকে তাহলে আপনার বন্ধুরাই হতে পারে আপনার সম্পর্কের জন্য ক্ষতিকর। একথা সব বন্ধুর জন্য প্রযোজ্য নয় তবে বন্ধুর প্রেমিক/প্রেমিকার সাথে ঘনিষ্টতা বাড়িয়ে সম্পর্ক ভেঙ্গে দেয়ার মত ঘটনা হরহামেশাই ঘটছে। 

অহেতুক কুৎসা রটানো 
আপনার বন্ধুরা আপনার সুন্দর মিষ্টি সম্পর্কে ঈর্ষান্বিত হয়ে আপনার প্রেমিক/প্রেমিকা সম্পর্কে অহেতুক কুৎসা রটানোর চেষ্টা করতে পারে। আপনার প্রেমিক/প্রেমিকার অতীত নিয়ে কিংবা বর্তমান নিয়ে নানান রকম মিথ্যা বানিয়ে আপনার কান ভারী করতে পারে বন্ধুরা। 
ঝগড়া লাগিয়ে দেয়া 

 
প্রেমিক/প্রেমিকার সাথে আপনার ঝগড়ার সূত্রপাতটাও আপনার কাছের বন্ধুটিই করতে পারে। ঝগড়া সৃষ্টি হতে পারে এমন উস্কানিমূলক কথাবার্তা আপনার প্রেমিক/প্রেমিকার সামনে বার বার বলেন এধরণের বন্ধুরা। ফলে আপনার সাথে আপনার প্রেমিক/প্রেমিকার অহেতুক মনোমালিন্য সৃষ্টি হয়। 

তুলনা করা 
আপনার সবচাইতে কাছের বন্ধুটি আপনার প্রেমিক/প্রেমিকার সাথে তার নিজের কিংবা অন্যের প্রেমিক/প্রেমিকার তুলনা করে সম্পর্কে ঝামেলা সৃষ্টি করতে পারে। ‘অমুকের প্রেমিকা অনেক ভালো রাঁধে তোমার প্রেমিকা কেন রাঁধে না’ কিংবা ‘অমুকের প্রেমিক তো অনেক যত্নশীল কিন্তু তোমার প্রেমিক এমন কেন?’ এধরণের অবান্তর কথা বার্তা আপনাকে বলে আপনার কান ভারী করতে পারে আপনার কাছের বন্ধুটিই। এতে আপনার মনে সম্পর্কের ব্যাপারে অতৃপ্তি তৈরী হবে এবং দুজনের মাঝে দূরত্ব বেড়ে যাবে অনেকখানি।